০৭:১৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিজ্ঞপ্তি

দুর্গাপুরে যুবকের হাতে ব্যবসায়ী খুন

প্রতিনিধির নাম
নেত্রকনোর দুর্গাপুরে মাসুদ মিয়া(২২) নামের এক যুবকের হাতে হেকমত আলী (৬৫) নামে এক ব্যবসায়ী খুন হয়েছেন। সোমবার রাত দেড়টার দিকে উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের মধ্যমবাগান এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।  নিহত হেকমত আলী উপজেলার দুর্গাপুর  ইউনিয়নের মধ্যম বাগান এলাকার মৃত মেহের আলীর ছেলে। নিহত হেকমত আলী হাবিব ভ্যারাইটিজ ষ্টোর নামের মুদির দোকানী ও ডিজেল ব্যবসায়ী ছিলেন। অভিযুক্ত যুবক মাসুদ মিয়া (২২) একই  এলাকার জালাল উদ্দিনের ছেলে।
জানা যায়, নিহত হেকমত আলী সারাদিন ব্যবসা পরিচালনা করে রাতে দোকানেই থাকতেন। সোমবার দোকানে রাত্রি যাপন কালে পরিকল্পিত ভাবে যুবক মাসুদ দোকানে ডুকে গলায় রশি প্যাঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে ও লাঠি দিয়ে মাথায় আঘাত করে হত্যা করার সময় রাত দেড়টার দিকে শাহীন নামের এক যুবক ডিজেল কিনতে আসলে দোকানের ভিতর লাইট জ্বালানো দেখে টিনের বেড়ায় ও দরজায় কড়া নাড়েন। সাড়াশব্দ না পেয়ে শাহীন দরজা ধাক্কা দিয়ে ভেতরে ঢুকতেই মাসুদ মিয়া দোকান ঘর হইতে দৌড় দিয়ে পালানোর চেষ্টা করলে শাহীন আলম মাসুদ মিয়াকে দৌড়াইয়া আটকানোর চেষ্টা করলে শাহীন আলম কে কুনই মারিয়া আঘাত করে পালিয়ে যায় মাসুদ। পরে শাহীনের ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসে এবং হেকমত আলীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষনা করেন।
দুর্গাপুর থানার (ভারপ্রাপ্ত) ওসি  মীর মাহবুবুর রহমান জানান, নিহতের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন। অভিযুক্ত মাসুদকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশি অভিযান অব্যাহত আছে।
ট্যাগস :
আপডেট : ০৭:৪৩:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২১ মার্চ ২০২২
১৪৬ বার পড়া হয়েছে

দুর্গাপুরে যুবকের হাতে ব্যবসায়ী খুন

আপডেট : ০৭:৪৩:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২১ মার্চ ২০২২
নেত্রকনোর দুর্গাপুরে মাসুদ মিয়া(২২) নামের এক যুবকের হাতে হেকমত আলী (৬৫) নামে এক ব্যবসায়ী খুন হয়েছেন। সোমবার রাত দেড়টার দিকে উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের মধ্যমবাগান এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।  নিহত হেকমত আলী উপজেলার দুর্গাপুর  ইউনিয়নের মধ্যম বাগান এলাকার মৃত মেহের আলীর ছেলে। নিহত হেকমত আলী হাবিব ভ্যারাইটিজ ষ্টোর নামের মুদির দোকানী ও ডিজেল ব্যবসায়ী ছিলেন। অভিযুক্ত যুবক মাসুদ মিয়া (২২) একই  এলাকার জালাল উদ্দিনের ছেলে।
জানা যায়, নিহত হেকমত আলী সারাদিন ব্যবসা পরিচালনা করে রাতে দোকানেই থাকতেন। সোমবার দোকানে রাত্রি যাপন কালে পরিকল্পিত ভাবে যুবক মাসুদ দোকানে ডুকে গলায় রশি প্যাঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে ও লাঠি দিয়ে মাথায় আঘাত করে হত্যা করার সময় রাত দেড়টার দিকে শাহীন নামের এক যুবক ডিজেল কিনতে আসলে দোকানের ভিতর লাইট জ্বালানো দেখে টিনের বেড়ায় ও দরজায় কড়া নাড়েন। সাড়াশব্দ না পেয়ে শাহীন দরজা ধাক্কা দিয়ে ভেতরে ঢুকতেই মাসুদ মিয়া দোকান ঘর হইতে দৌড় দিয়ে পালানোর চেষ্টা করলে শাহীন আলম মাসুদ মিয়াকে দৌড়াইয়া আটকানোর চেষ্টা করলে শাহীন আলম কে কুনই মারিয়া আঘাত করে পালিয়ে যায় মাসুদ। পরে শাহীনের ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে আসে এবং হেকমত আলীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষনা করেন।
দুর্গাপুর থানার (ভারপ্রাপ্ত) ওসি  মীর মাহবুবুর রহমান জানান, নিহতের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন। অভিযুক্ত মাসুদকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশি অভিযান অব্যাহত আছে।