১০:৫২ অপরাহ্ন, রবিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বিজ্ঞপ্তি

পত্নীতলায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে মানববন্ধন

প্রতিনিধির নাম
বৃহস্পতিবার (১৭ ফেব্রুয়ারী) সকাল ১১ টায় পত্নীতলা উপজেলার সর্বস্তরের জনসাধারণের ব‍্যানারে উপজেলার নজিপুর বাসস্ট্যান্ড গোলচত্বর এলাকায় এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে অংশ নেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী, সাংবাদিক, ব্যবসায়ীসহ নানান শ্রেণী পেশার মানুষ।
সম্প্রতি পত্নীতলায় সড়ক দুর্ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে ‘ নিরাপদ সড়ক চাই, বাচাঁর মত বাচঁতে চাই’ এই স্লোগানে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
মানববন্ধনে ৭ দফা দাবি নিয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন করেন আয়োজকেরা । তাদের দাবি, লাইন্সেস বিহীন ড্রাইভার ও ফিটনেস বিহীন গাড়ি দ্রুত সরানোর ব্যবস্থা করতে হবে, শহরের প্রধান সড়কগুলো মেরামত করতে হবে, রাস্তার পাশে ফুটপাতের দোকান সরিয়ে ফেলতে হবে এবং যান-চলাচলের উপযোগী করতে হবে, ড্রেন ব্যবস্থা চালু করে পানি চলাচল ব্যবস্থা করতে হবে, গোলচত্ত্বরে ট্রাফিক পুলিশ নিয়োগ সহ ট্রাফিক আইন বাস্তবায়ন করতে হবে, স্কুল-কলেজে ও বাজারের সামনে স্পীড ব্রেকারের ব্যবস্থা করতে হবে, অপ্রাপ্তবয়স্ক ছেলেদের বাইক চালানোর ক্ষেত্রে কঠোর নিষেধাজ্ঞা জারী করতে হবে।
নজিপুর বাসষ্ট‍্যান্ড গোলচত্বরে শুরু হওয়া মানববন্ধন থেকে একটি মিছিল উপজেলা চত্বরে এসে শেষ হয়, পরে উপজেলা প্রশাসক বরাবর ৭ দফা দাবি সংবলিত একটি স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।
ট্যাগস :
আপডেট : ০৪:১৬:৪৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২
১৪১ বার পড়া হয়েছে

পত্নীতলায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে মানববন্ধন

আপডেট : ০৪:১৬:৪৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২
বৃহস্পতিবার (১৭ ফেব্রুয়ারী) সকাল ১১ টায় পত্নীতলা উপজেলার সর্বস্তরের জনসাধারণের ব‍্যানারে উপজেলার নজিপুর বাসস্ট্যান্ড গোলচত্বর এলাকায় এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে অংশ নেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী, সাংবাদিক, ব্যবসায়ীসহ নানান শ্রেণী পেশার মানুষ।
সম্প্রতি পত্নীতলায় সড়ক দুর্ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে ‘ নিরাপদ সড়ক চাই, বাচাঁর মত বাচঁতে চাই’ এই স্লোগানে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
মানববন্ধনে ৭ দফা দাবি নিয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন করেন আয়োজকেরা । তাদের দাবি, লাইন্সেস বিহীন ড্রাইভার ও ফিটনেস বিহীন গাড়ি দ্রুত সরানোর ব্যবস্থা করতে হবে, শহরের প্রধান সড়কগুলো মেরামত করতে হবে, রাস্তার পাশে ফুটপাতের দোকান সরিয়ে ফেলতে হবে এবং যান-চলাচলের উপযোগী করতে হবে, ড্রেন ব্যবস্থা চালু করে পানি চলাচল ব্যবস্থা করতে হবে, গোলচত্ত্বরে ট্রাফিক পুলিশ নিয়োগ সহ ট্রাফিক আইন বাস্তবায়ন করতে হবে, স্কুল-কলেজে ও বাজারের সামনে স্পীড ব্রেকারের ব্যবস্থা করতে হবে, অপ্রাপ্তবয়স্ক ছেলেদের বাইক চালানোর ক্ষেত্রে কঠোর নিষেধাজ্ঞা জারী করতে হবে।
নজিপুর বাসষ্ট‍্যান্ড গোলচত্বরে শুরু হওয়া মানববন্ধন থেকে একটি মিছিল উপজেলা চত্বরে এসে শেষ হয়, পরে উপজেলা প্রশাসক বরাবর ৭ দফা দাবি সংবলিত একটি স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।