০৯:৩১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বিজ্ঞপ্তি

বেনাপোলে পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণ, উড়ে গেল কিশোরের চোখ 

মো: সাগর হোসেন,বেনাপোল প্রতিনিধি
 
যশোরের বেনাপোল পোর্ট থানাধীন বড়আঁচড়া গ্রামের বেগুন-কচু ক্ষেতে কাজ করার সময় পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণে মুরাদ হোসেন (১৬) নামে এক কিশোরের এক চোখ উড়ে যাওয়া সহ ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। এ ঘটনার সাথে সাথে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন
 
বৃহস্পতিবার দুপুরে বেনাপোল বড়আঁচড়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।
 
আহত মুরাদ হোসেন বড় আঁচড়া ৯নং ওয়ার্ডের  আরিফের ছেলে।
 
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, মুরাদ দুপুরে বাড়ির পাশে বেগুন-কচু ক্ষেতে কাজ করছিল। এসময় সে বোমাটি চিনতে না পারায় তাতে আঘাত করে। ফলে বিকট শব্দে বোমাটি বিষ্ফোরিত হয়। এসময় বোমার শব্দ শুনে সেখানে আমরা গিয়ে দেখি মুরাদ মারাত্মক ভাবে আহত হয়েছে। বোমার আঘাতে মুরাদের চোখ মুখ ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। তাকে আমরা দ্রুত উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়।
 
বেনাপোল বড়আঁচড়া ৯নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর কামাল হোসেন বলেন, মুরাদ কচু ক্ষেত্রে কাজ করার সময় পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণে মারাত্মক ভাবে ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। কে বা কারা সেখানে বোমাটি ফেলে রেখে গেছে। 
 
এবিষয়ে বেনাপোল পোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ কামাল হোসেন ভূঁইয়া বলেন, বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা শুনে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়। তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আর এঘটনায় বোমার আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। কি কারণে সেখানে বোমা রাখা হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
ট্যাগস :
আপডেট : ০৭:৩৪:৫৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১২ অক্টোবর ২০২৩
৬৬ বার পড়া হয়েছে

বেনাপোলে পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণ, উড়ে গেল কিশোরের চোখ 

আপডেট : ০৭:৩৪:৫৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১২ অক্টোবর ২০২৩
 
যশোরের বেনাপোল পোর্ট থানাধীন বড়আঁচড়া গ্রামের বেগুন-কচু ক্ষেতে কাজ করার সময় পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণে মুরাদ হোসেন (১৬) নামে এক কিশোরের এক চোখ উড়ে যাওয়া সহ ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। এ ঘটনার সাথে সাথে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন
 
বৃহস্পতিবার দুপুরে বেনাপোল বড়আঁচড়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।
 
আহত মুরাদ হোসেন বড় আঁচড়া ৯নং ওয়ার্ডের  আরিফের ছেলে।
 
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, মুরাদ দুপুরে বাড়ির পাশে বেগুন-কচু ক্ষেতে কাজ করছিল। এসময় সে বোমাটি চিনতে না পারায় তাতে আঘাত করে। ফলে বিকট শব্দে বোমাটি বিষ্ফোরিত হয়। এসময় বোমার শব্দ শুনে সেখানে আমরা গিয়ে দেখি মুরাদ মারাত্মক ভাবে আহত হয়েছে। বোমার আঘাতে মুরাদের চোখ মুখ ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। তাকে আমরা দ্রুত উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়।
 
বেনাপোল বড়আঁচড়া ৯নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর কামাল হোসেন বলেন, মুরাদ কচু ক্ষেত্রে কাজ করার সময় পরিত্যক্ত বোমা বিস্ফোরণে মারাত্মক ভাবে ক্ষত-বিক্ষত হয়েছে। কে বা কারা সেখানে বোমাটি ফেলে রেখে গেছে। 
 
এবিষয়ে বেনাপোল পোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ কামাল হোসেন ভূঁইয়া বলেন, বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা শুনে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়। তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আর এঘটনায় বোমার আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। কি কারণে সেখানে বোমা রাখা হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।