১১:১৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বিজ্ঞপ্তি

শ্রমিকদের আন্দোলনে বড় কিছু হয়নি,কেউ মারা যায়নি: মিরপুর ডিসি

প্রতিনিধির নাম

রাজধানীর মিরপুরের সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শনে এসে কালশী রোডে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মিরপুর বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) জসিম উদ্দিন বলেন, গার্মেন্ট শ্রমিকদের আন্দোলনে গুজব ছড়ানো হয়েছে। বড় কিছু হয়নি। কেউ মারা যায়নি।

মিরপুরের ডিসি বলেন, শ্রমিকদের মধ্যে তো কোন নেতৃত্ব নাই। তাদের কেউ বলে তারা রাস্তায় বসবে, কেউ বলে ছুটি নিবে, কেউ বলে গার্মেন্টস এর ভিতরে যাবে। মিরপুর ১২ নম্বরে গার্মেন্টসে স্থানীয় লোকজনের বসবাস বেশি। এখানেও তাদের গার্মেন্টস আছে। এই নিয়ে ভুল বুঝাবুঝি হয়ে হাতাহাতি হতে পারে। বিষয়টির তদন্ত সাপেক্ষে জানা যাবে।

জসিম উদ্দিন বলেন, সারা বাংলাদেশে গার্মেন্টস শ্রমিকদের বেতন ভাতা বৃদ্ধির বিষয়ে দুই একদিনের মধ্যে একটি সিদ্ধান্ত আসবে। বেতন ভাতা বৃদ্ধির দাবিতেই তারা সড়কে নেমেছে। আমরা বলেছি তোমাদের শ্রম মন্ত্রণালয় ও শ্রম অধিদপ্তর আছে, বিজিএমই একটি সিদ্ধান্ত নিবে। শ্রমিকরা এখন পুরোপুরি সিনেমা হল সামনের রাস্তায় অবস্থান করছে। হয়তো তারা চলে যাবে।

হতাহত বা আহত হয়েছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, বড় ধরনের কোন দুর্ঘটনা ঘটেছে কিনা এ বিষয়ে জানা নেই ।

অবরোধের বিষয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, নাশকতা কারীদের বিরুদ্ধে প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অবরোধের নামে মিরপুরের মানুষের জান মালের ক্ষতি করার চেষ্টা করলে আইন অনুযায়ী কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ট্যাগস :
আপডেট : ০৪:১৭:৩৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ অক্টোবর ২০২৩
১০৬ বার পড়া হয়েছে

শ্রমিকদের আন্দোলনে বড় কিছু হয়নি,কেউ মারা যায়নি: মিরপুর ডিসি

আপডেট : ০৪:১৭:৩৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ অক্টোবর ২০২৩

রাজধানীর মিরপুরের সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শনে এসে কালশী রোডে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মিরপুর বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) জসিম উদ্দিন বলেন, গার্মেন্ট শ্রমিকদের আন্দোলনে গুজব ছড়ানো হয়েছে। বড় কিছু হয়নি। কেউ মারা যায়নি।

মিরপুরের ডিসি বলেন, শ্রমিকদের মধ্যে তো কোন নেতৃত্ব নাই। তাদের কেউ বলে তারা রাস্তায় বসবে, কেউ বলে ছুটি নিবে, কেউ বলে গার্মেন্টস এর ভিতরে যাবে। মিরপুর ১২ নম্বরে গার্মেন্টসে স্থানীয় লোকজনের বসবাস বেশি। এখানেও তাদের গার্মেন্টস আছে। এই নিয়ে ভুল বুঝাবুঝি হয়ে হাতাহাতি হতে পারে। বিষয়টির তদন্ত সাপেক্ষে জানা যাবে।

জসিম উদ্দিন বলেন, সারা বাংলাদেশে গার্মেন্টস শ্রমিকদের বেতন ভাতা বৃদ্ধির বিষয়ে দুই একদিনের মধ্যে একটি সিদ্ধান্ত আসবে। বেতন ভাতা বৃদ্ধির দাবিতেই তারা সড়কে নেমেছে। আমরা বলেছি তোমাদের শ্রম মন্ত্রণালয় ও শ্রম অধিদপ্তর আছে, বিজিএমই একটি সিদ্ধান্ত নিবে। শ্রমিকরা এখন পুরোপুরি সিনেমা হল সামনের রাস্তায় অবস্থান করছে। হয়তো তারা চলে যাবে।

হতাহত বা আহত হয়েছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বলেন, বড় ধরনের কোন দুর্ঘটনা ঘটেছে কিনা এ বিষয়ে জানা নেই ।

অবরোধের বিষয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, নাশকতা কারীদের বিরুদ্ধে প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অবরোধের নামে মিরপুরের মানুষের জান মালের ক্ষতি করার চেষ্টা করলে আইন অনুযায়ী কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।