১০:০০ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৯ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিজ্ঞপ্তি

হবিগঞ্জে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইকিউবেশন সেন্টার” এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

মোঃ আব্দুল হান্নান চৌধুরী, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি 
 তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, এমপি বলেছেন, গণমাধ্যমের স্বাধীন মত প্রকাশে সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট কোন প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে না। এই আইন তথ্য প্রযুক্তির অপব্যবহার রোধে সহায়ক ভূমিকা রাখবে। এই আইনে সাংবাদিক, শিল্পী ও সাহিত্যিকগণদের মত প্রকাশে কোন মনস্তাত্ত্বিক চাপ সৃষ্টি ও বাঁধা হবে না। তিনি বলে, রাষ্ট্রিয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি এবং গুরুত্বপূর্ণ প্রতিষ্ঠানে সাইবার
আক্রমন বা হ্যাকিং এর মত অপরাধে এই আইনের ৪টি ধারা শুধু জামিন অযোগ্য আর বাকি সকল ধারা গুলো প্রধানমন্ত্রী জামিন যোগ্য করেছেন। তিনি আজ বুধবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সকালে হবিগঞ্জে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের উদ্যোগে “শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন সেন্টার” এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা বলেন।
বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মোঃ মাহবুব আলী এমপি, সংসদ সদস্য ও
জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এডভোকেট মোঃ আবু জাহির, শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং
ও ইনকিউবেশন সেন্টার এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক জি এস এম জাফর উল্লাহ, প্রকল্প পরিচালক প্রকৌশলী মোহাম্মদ আতিকুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মিন্টু চৌধুরী, পৌর মেয়র আতাউর রহমান সেলিমসহ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।
পরে জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে ডিজিটাল বাংলাদেশ টু স্মার্ট বাংলাদেশ বিষয়ক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সামসুল আরেফিন এর সভাপিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মন্ত্রী।
উল্লেখ্য, হবিগঞ্জ সদর উপজেলার রিচি ইউনিয়নের আনন্দপুর মৌজার দুর্লভপুর গ্রামে ৮
একর সরকারি ভূমিতে ৮০ কোটি টাকা ব্যয়ে শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন
সেন্টার নির্মিত হচ্ছে।
প্রতিমন্ত্রী প্রকল্প এলাকায় একটি গাছের চারা রোপন করেন। তিনি বেলুন উড়িয়ে এবং কাজের ভিত্তিফলক উন্মোচন করে এই কাজের উদ্বোধন ঘোষণা করেন।
ট্যাগস :
আপডেট : ০৪:২১:০০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩
৯০ বার পড়া হয়েছে

হবিগঞ্জে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইকিউবেশন সেন্টার” এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

আপডেট : ০৪:২১:০০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩
 তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, এমপি বলেছেন, গণমাধ্যমের স্বাধীন মত প্রকাশে সাইবার সিকিউরিটি অ্যাক্ট কোন প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে না। এই আইন তথ্য প্রযুক্তির অপব্যবহার রোধে সহায়ক ভূমিকা রাখবে। এই আইনে সাংবাদিক, শিল্পী ও সাহিত্যিকগণদের মত প্রকাশে কোন মনস্তাত্ত্বিক চাপ সৃষ্টি ও বাঁধা হবে না। তিনি বলে, রাষ্ট্রিয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি এবং গুরুত্বপূর্ণ প্রতিষ্ঠানে সাইবার
আক্রমন বা হ্যাকিং এর মত অপরাধে এই আইনের ৪টি ধারা শুধু জামিন অযোগ্য আর বাকি সকল ধারা গুলো প্রধানমন্ত্রী জামিন যোগ্য করেছেন। তিনি আজ বুধবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সকালে হবিগঞ্জে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের উদ্যোগে “শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন সেন্টার” এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা বলেন।
বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মোঃ মাহবুব আলী এমপি, সংসদ সদস্য ও
জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এডভোকেট মোঃ আবু জাহির, শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং
ও ইনকিউবেশন সেন্টার এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক জি এস এম জাফর উল্লাহ, প্রকল্প পরিচালক প্রকৌশলী মোহাম্মদ আতিকুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মিন্টু চৌধুরী, পৌর মেয়র আতাউর রহমান সেলিমসহ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।
পরে জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে ডিজিটাল বাংলাদেশ টু স্মার্ট বাংলাদেশ বিষয়ক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সামসুল আরেফিন এর সভাপিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মন্ত্রী।
উল্লেখ্য, হবিগঞ্জ সদর উপজেলার রিচি ইউনিয়নের আনন্দপুর মৌজার দুর্লভপুর গ্রামে ৮
একর সরকারি ভূমিতে ৮০ কোটি টাকা ব্যয়ে শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং ও ইনকিউবেশন
সেন্টার নির্মিত হচ্ছে।
প্রতিমন্ত্রী প্রকল্প এলাকায় একটি গাছের চারা রোপন করেন। তিনি বেলুন উড়িয়ে এবং কাজের ভিত্তিফলক উন্মোচন করে এই কাজের উদ্বোধন ঘোষণা করেন।