বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৫:৪৬ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
১৭ মে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা,গণতন্ত্রের অগ্নিবীণা ও উন্নয়ন-প্রগতির প্রত্যাবর্তনঃ তথ্যমন্ত্রী নাজিরপুর অঞ্চলের কৃষকের স্বপ্ন প্রতি বছর তলিয়ে যায় পানির নিচে কালিহাতীতে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্বোধন রাজশাহী জেলা সড়ক পরিবহণ শ্রমিক ইউনিয়নের ভোট স্থগিত প্রফেসর ডাক্তার উত্তম কুমার বড়ুয়াকে সংবর্ধিত করলো মিলন-পুর্নিমা ফাউন্ডেশন ঈদগাঁওর ৫ ইউনিয়নে আওয়ামী রাজনৈতিক অঙ্গনে চাঙ্গাভাব: উচ্ছাস তৃনমূলে চট্টগ্রামের হিজরা সুমন মানবিক কাজে আত্ম তৃপ্তি পান সরিষাবাড়ীতে দুই শিশু শিক্ষার্থী হারানোকে কেন্দ্র করে মাদ্রাসায় হামলা ভাঙচুর ও শিক্ষককে লাঞ্ছিত নাটোরে ধর্ষণ মামলায় যুবক গ্রেফতার মনোহরদীতে নৌকার প্রার্থীর প্রচারণায় হামলা, ভাংচুর

হাটহাজারীতে অবৈধ জ্বালানি কাঠসহ ২টি গাড়ি জব্দ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
চট্টগ্রামের হাটহাজারী থানাধীন ধলই এনায়েতপুর এলাকার হারুন চেয়ারম্যান ঘাটা এলাকায় অভিযান চালিয়ে জ্বালানী বোঝাই দুইটি জীপ গাড়ী থেকে আনুমানিক ১ লক্ষ টাকার অবৈধ জ্বালানী কাঠসহ দুই জনকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা এবং ২টি জীপ গাড়ি জব্ধ করা হয়।

বুধবার ২৬ জানুয়ারি দিবাগত রাত ১ঃ৩০ মিনিটের সময় হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ শহিদুল আলমের নেতৃত্ব উত্তর বনবিভাগ এর টাস্ক ফোর্স অভিযান চালিয়ে আনুমানিক ১ লক্ষ টাকার অবৈধ জ্বালানি কাঠসহ ২টি গাড়ি জব্দ করা হয়।

দুই অভিযুক্তরা হলেন, হাটহাজারী উপজেলার ধলই এনায়েতপুর এলাকার আবুল কালামের ছেলে এমরান আলী এবং রমজান আলী।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ শাহিদুল আলম এর ভাম্যমাণ আদালত বন আইন-১৯২৭ এর ৬৭ ধারা অনুযায়ী আটককৃত দুই জনকে ১০ হাজার টাকা করে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এসময় অবৈধ কাঠ গুলো জব্ধ করা হয়।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ শাহিদুল আলম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গভীর রাতে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় কাঠ বোঝাই দুটি চাঁদের গাড়ি (জিপ) আটক করা করা হয়। গাড়ি দুটিকে বন বিভাগীয় প্রচলিত বন আইন-১৯২৭  এর ৬৭ ধারা অনুযায়ী ১০ হাজার করে মোট ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। জব্দ করা কাঠ নিয়মিত মামলার জন্য বন বিভাগের কাছে হস্তান্তর করা হয়। বনজ সম্পদ রক্ষায় আমাদের এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।

তিনি আরও জানান, রাতের আধারে কাঠ পাচারের বিষয় নিয়ে বন বিভাগকে আরো বেশী সজাগ ও তৎপর থাকতে হবে । আমাদের আছে তথ্য আছে হাটহাজারীতে অবৈধ করাত কল আছে। আমাদের অভিযান শুরু হয়েছে। করাত কল গুলোর কাগজ পত্র যাচাই বাছাই করে দেখব। যেগুলোর বৈধ কাগজ পত্র আছে সেগুলো চালু থাকবে। আর যাদের বৈধতা নেই তাদের বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোন অবস্থাতেই বনজ সম্পদ ধ্বংস হতে দেয়া হবে না।

চট্টগ্রাম উত্তর বন বিভাগের হাটহাজারী ষ্টেশন কর্মকর্তা মোঃ ফজলুল কাদের চৌধুরী জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা হারুন চেয়ারম্যান ঘাটা এলাকায় অবস্থান নিই। এরপর কাঠ বোঝাই গাড়ি ২টি দেখামাত্র ধাওয়া করে আটক করি। পরে গাড়িসহ অবৈধ ১ লক্ষ টাকার জ্বালানি কাঠ জব্দ এবং ২ জনকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

তিনি জানান, সংঘবদ্ধ একটি কাঠ চোরাকারবারী সিন্ডিকেট বন বিভাগের লোকজনের চোঁখকে ফাঁকি দিয়ে বননিধন ও চোরাই পথে কাঠ পাচার অব্যাহত রাখার চেস্টা করছে। কিন্তু যখনই খবর পাওয়া যাচ্ছে তখনই চালানো হচ্ছে অভিযান। এতে করে দিনদিন চোরাই পথে কাঠ পাচার হ্রাস পাচ্ছে। এ সংক্রান্তে বেশ কয়েকটি সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।বন অপরাধীদের বিরুদ্ধে চলমান অভিযান অব্যাহত থাকবে।

 বিএস/কেসিবি/সিটিজি/৭ঃ৩৯পিএম

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved