মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৭:১৭ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
রেমিটেন্স যোদ্ধাদেরকে সম্মাননা দেবে মহানগর আওয়ামী লীগ- আ জ ম নাছির উদ্দীন যাত্রীর স্বর্ণালংকারসহ ব্যাগ চুরি;এ্যাপসের সহায়তায় সিএনজি চালক আটক রোহিঙ্গারা যাতে ভোটার তালিকায় স্থান না পায় সে ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবেঃ জেলা প্রশাসক চলচ্চিত্র ‍‘হুইল চেয়ার’র প্রিমিয়ার শো চট্টগ্রাম শিল্পকলায় বৃহস্পতিবার বাগেরহাট জেলার সেরা অফিসার নির্বাচিত হয়েছেন এসি ল্যান্ড মোঃ আলী হাসান খেলাধুলায় সম্পৃক্ত থাকলে আমাদের সন্তানরা বিপদগামী হবে না-মহিউদ্দীন মহারাজ ভান্ডারিয়ায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্বোধন কোভিড-১৯ এর সার্টিফিকেট নিয়ে বিদেশগামী সাধারণ যাত্রীদের সাথে প্রতারণা;চক্রের ৭ সদস্য গ্রেফতার নগরীতে র‍্যাব-৭ ও ভোক্তা অধিকার যৌথ অভিযান;১২ হাজার লিটার তৈল জব্দসহ ৫ লক্ষ টাকা জরিমানা ঝুঁকিপূর্ণ সেতুটি সংস্কার করা হয়েছে 

বান্দরবানে সেনাবাহিনীর সাথে জেএসএস সন্ত্রসীদের গোলাগুলিতে সেনা কর্মকর্তাসহ নিহত-৪,অস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার!

বান্দরবানের রুমা জোনের (২৮ বীর) রাইক্ষিয়াংলেক আর্মি ক্যাম্পের সেনা টহল দলের ওপর হামলা চালিয়েছে জেএসএস (মূল দলে) সদস্যরা।

এ সময় তাদের গুলিতে এক সেনা কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। সেনা সদস্যদের চালানো পাল্টা গুলিতে জেএসএসের তিন সদস্য মারা গেছে। গুলিতে আরও এক সেনা সদস্য আহত হয়েছেন।

বুধবার (২ ফেব্রুয়ারি) রাত ১১টার দিকে রুমার বথিপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থল থেকে একটি এসএমজি, তিনটি দেশীয় অস্ত্র, ২৮০ রাউন্ড গুলি, সন্ত্রাসীদের ব্যবহৃত পোশাকসহ নানা সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।নিহত সেনা কর্মকর্তার নাম মো. হাবিবুর রহমান। তিনি রুমা জোন (২৮) বীর রাইক্ষিয়াংলেক আর্মি ক্যাম্পের সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসার ছিলেন। আহত সেনা সদস্যের নাম মো. ফিরোজ।তবে নিহত জেএসএস সদস্যদের নাম জানা যায়নি।

আইএসপিআরের সহকারী পরিচালক রাশেদুল আলম খান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করা হয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়- রুমায় সেনা সদস্যদের ওপর সন্ত্রাসীদের হামলায় এক সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া তিন সন্ত্রাসী নিহত হওয়ার তথ্যও এতে উল্লেখ করা হয়।

স্থানীয় সূত্র জানায়, গত সন্ধ্যায় সেনা কর্মকর্তা হাবিবুর রহমানের নেতৃত্বে রাইক্ষিয়াংলেক আর্মি ক্যাম্প থেকে একটি বিশেষ টহল দল পাখই পাড়ায় যায়। সেখানে গিয়ে তারা জানতে পারেন বথিপাড়া এলাকার আস্তানায় জেএসএস সদস্যরা অবস্থান করছেন। পরে বথিপাড়ায় গেলে সেনা সদস্যদের ওপর গুলি চালিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে জেএসএস সন্ত্রাসীরা। সেনা সদস্যরাও পাল্টা গুলি চালান।

এ সময় সন্ত্রাসীদের গুলিতে প্রাণ হারান সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসার হাবিবুর রহমান। আরেক সেনা সদস্য ফিরোজের পায়েও গুলি লাগে। পরে ঘটনাস্থল থেকে জেএসএসের তিন সদস্যের  লাশ উদ্ধার করা হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved