শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২, ০৯:২৫ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
বারইয়ারহাটে র‍্যাবের উপর মাদক কারবারিদের পরিকল্পিত হামলা ও ঘটনার বিশ্লেষণ ইতিহাস৭১.টিভির বর্ষপুর্তি উপলক্ষে আলোচনা ও কেক কাটা অনুষ্ঠান সম্পন্ন এসিল্যান্ড মাসুদ রানার অঙ্গীকার, ভুমি সেবা পাচ্ছে সাধারণ মানুষ ঋণের দিক দিয়ে এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান সবচেয়ে ভালো: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী ভাণ্ডারিয়ায় বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সন্তান কমান্ডের পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত বানিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে “ভোক্তা অধিকার বিভাগ” চায় ক্যাব চকরিয়ায় ইউপি সচিবের উপর হামলার ঘটনায় ইউপি মেম্বার কারাগারে নিকলীতে কৃষক রেনু হত্যার এক মাসেও আসামীরা ধরা ছোঁয়ার বাইরে সরিষাবাড়ীতে কচুড়িপানায় নদীর উপর রাস্তা : ভরা নদীর বুকে চালাচ্ছে সাইকেল, খেলছে ফুটবল নরসিংদীতে দুর্ঘটনার কবলে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ত্রাণবাহী পিকআপ ভ্যান

বাকলিয়ায় কোটি কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে ভিওআইপি ব্যবসা;মূলহোতা আটক

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়ায় একটি আবাসিক ভবনে অভিযান পরিচালনা করে রাষ্ট্রের কোটি কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকির অভিযোগে বিপুল পরিমান অবৈধ ও ২০০৪ সাল থেকে ব্যবহার করা ৫৫ লাখ টাকা মূল্যের ভিওআইপি (VOIP) সরঞ্জামাদি এবং ১৩৫০ টি মোবাইল সিমসহ মূলহোতাকে আটক করেছে র্যাব-৭, চট্টগ্রাম।

আজ শুক্রুবার ১১ ফেব্রুয়ারি দিবাগত রাত ৪;০৫ মিনিটের সময় অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করা হয়। আজ শুক্রুবার ১১ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৪ঃ৩০ মিনিটে র‍্যাব-৭ এর চাঁদগাও (সিপিসি-৩) এ আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে অভিযানের বিষয়ে বিস্তারিত তুলে ধরেন র‌্যাব-৭, এর অধিনায়ক লেঃ কর্নেল এম এ ইউসুফ।

আটককৃত আসামী বদরুদ্দোজা (৩৬) চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া থানাধীন মধ্যম কাঞ্চনা্র মাওলানা শফিকুর রহমানের ছেলে।

র‌্যাব-৭, এর অধিনায়ক লেঃ কর্নেল এম এ ইউসুফ জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা জানতে পারি যে চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকালিয়া থানাধীন আবু জাফর রোড ময়দার মিল ইয়ার আলী খান মসজিদের সামনে কাশেম ম্যানশনে জনৈক ভিওআইপি ব্যাবসায়ী অবৈধভাবে ভিওআইপি ব্যাবসা করছে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব-৭ এর একটি চৌকস আভিযানিক দল এবং বিটিআরসির কর্মকর্তাসহ অভিযান পরিচালনা করে একজনকে আটক করা হয়। পরে গ্রেফতারকৃত আসামীর হেফাজতে থাকা অবৈধ ভিওআইপি ব্যাবসার কাজে ব্যবহৃত অত্যাধুনিক ভিওআইপি ব্যবসার তিনটি মেশিন, চারটি ল্যাপটপ, একটি ট্যাব, আটটি রাউটার,১৩৫০ টি মোবাইল সিম,এক ব্যাগ সিম কার্ডের খালি প্যাকেট, একটি সিসি ক্যামেরা, একটি আইপিএস মেশিন,দুইটি কী বোর্ড ও চারটি মাউস,একটি চার্জার ও চারটি মাল্টিপ্লাগ,একটি পেইনড্রাইভ ও পাঁচটি মডেম, একটি আইপিএস ব্যাটারী এবং চারটি ল্যাপটপের এয়ারকুলার, উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত অবৈধ ভিওআইপির আনুমানিক মূল্য ৫৫ লক্ষ টাকা।

তিনি জানান, গ্রেফতারকৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে আরো জানা যায় এই ব্যবসার সাথে তার আপন ছোট ভাই নুরুল হুদা ওরফে রনি জড়িত। তারা দুই ভাই মিলে ২০০৪ সাল থেকে লাইসেন্স বিহীন অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসা করে রাষ্ট্রের কোটি কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে আসছে। গ্রেফতারকৃত আসামীকে চট্টগ্রাম জেলার সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

বিএস/কেসিবি/সিটিজি/১০ঃ১০পিএম

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved