বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৫:৫৪ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
ছাতকের পরিস্থিতি ভয়াবহ,সারা‌দে‌শে সঙ্গে সড়ক যোগা‌যোগ বন্ধ পিরোজপুরে বাস চাপায় কলেজ ছাত্র নিহত ১৭ মে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা,গণতন্ত্রের অগ্নিবীণা ও উন্নয়ন-প্রগতির প্রত্যাবর্তনঃ তথ্যমন্ত্রী নাজিরপুর অঞ্চলের কৃষকের স্বপ্ন প্রতি বছর তলিয়ে যায় পানির নিচে কালিহাতীতে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্বোধন রাজশাহী জেলা সড়ক পরিবহণ শ্রমিক ইউনিয়নের ভোট স্থগিত প্রফেসর ডাক্তার উত্তম কুমার বড়ুয়াকে সংবর্ধিত করলো মিলন-পুর্নিমা ফাউন্ডেশন ঈদগাঁওর ৫ ইউনিয়নে আওয়ামী রাজনৈতিক অঙ্গনে চাঙ্গাভাব: উচ্ছাস তৃনমূলে চট্টগ্রামের হিজরা সুমন মানবিক কাজে আত্ম তৃপ্তি পান সরিষাবাড়ীতে দুই শিশু শিক্ষার্থী হারানোকে কেন্দ্র করে মাদ্রাসায় হামলা ভাঙচুর ও শিক্ষককে লাঞ্ছিত

সীতাকুন্ডে অর্জুন চন্দ্রনাথকে হত্যা করে লাশ গুম;মামলার প্রধান আসামী বাহার আটক

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ডে অর্জুন চন্দ্রনাথকে হত্যা করে লাশ গুম করা মামলার প্রধান আসামী এবং নারী নির্যাতন মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী ইসমাইল ওরফে বাহার (৩২)র‌্যাবের হাতে আটক।

আজ শনিবার ১৯ ফেব্রুয়ারি সকাল ৬ঃ০০ টায় সীতাকুন্ড থানাধীন কুমিরা বাজারে অভিযান চালিকে আসামী মোঃ ইসমাইল ওরফে বাহার কে আটক করা হয়। সে চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ড থানাধীন ফৌজদারহাট এলাকার মোঃ মোছা মিয়ার ছেলে।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, ২০১৭ সালের ২৮ আগস্ট চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ড থানাধীন উত্তর বাঁশবাড়িয়া গ্রামের অর্জুন চন্দ্রনাথ ভূষি কেনার জন্য নগদ ৭০,০০০ টাকা নিয়ে বাড়ি থেকে বাজারের উদ্দেশ্যে বের হলে আসামী ইসমাইলসহ আরও ৪ জন দুস্কৃতিকারী তাকে সুলতানা মন্দির ঝুমপাড়া নামক স্থান হতে ধরে পাহাড়ের দিকে নিয়ে গিয়ে দেশীয় ধারালো অস্ত্র দিয়ে প্রথমে মাথায় এবং মুখসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করে। পরে দুস্কৃতিকারীরা তার লাশ গুম করার জন্য কুমিরাঘাট সুইচ গেইট শ্মশানখোলার পিছনে একটি খালের পানিতে লাশটিকে ভাসিয়ে দেয়। পরবর্তীতে ৩ সেপ্টেম্বর সীতাকুন্ড থানা পুলিশ উক্ত লাশ উদ্ধার করে।খুন ও লাশ গুম এর ঘটনায় নিহতের স্ত্রী মনি রাণী নাথ বাদী হয়ে চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ড থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। মামলাটি প্রথমে সীতাকুন্ড থানা পুলিশ তদন্ত করে এবং পরবর্তীতে মামলাটি সিআইডি, চট্টগ্রাম কর্তৃক তদন্ত করা হয়। সিআইডি এর তদন্তে ইসমাইল অর্জুন চন্দ্রনাথ হত্যাকান্ডের মূল আসামী হিসেবে শনাক্ত হয়। সিআইডির তদন্ত শেষে ঘটনাটিতে ইসমাইলসহ তার সহযোগী অপর ৪ জন আসামীর বিরুদ্ধে সি/এস দাখিল করা হয়।

র‌্যাব-৭, এর সিনিঃ সহকারী পরিচালক মোঃ নুরুল আবছার জানান, র‍্যাব-৭ ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারের লক্ষ্যে ব্যপক গোয়েন্দা নজরদারী অব্যাহত রাখে। নজরদারীর এক পর্যায়ে চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ড থানাধীন কুমিরা বাজারে অভিযান মামলার পলাতক ও অন্যতম প্রধান আসামী মোঃ ইসমাইল ওরফে বাহারকে আটক করা হয় ।

তিনি জানান,গ্রেফতারকৃত আসামী অকপটে স্বীকার করে যে, সে অর্জুন চন্দ্রনাথকে হত্যার সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত ছিলো এবং ঘটনাটি সংগঠিত হওয়ার পর থেকে আসামী ইসমাইল দেশের বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন পেশায় নিয়োজিত হন। গ্রেফতারকৃত আসামীকে চট্টগ্রাম জেলার সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য যে, আসামী ইসমাইল ২০১২ সালে তার স্ত্রী মোছাঃ রীনা আক্তারকে নির্দয়ভাবে মারপিট করার কারণে তার স্ত্রী ইসমাইলের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু দমন ট্রাইবুনালে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন (সংশোধন ২০০৩) ২০০২ এর ১১ (খ) ধারায় মামলা করলে ঐ মামলায় ইসমাইলের এক বছরের বিনাশ্রম কারাদন্ড হয়।

বিএস/কেসিবি/সিটিজি/৩ঃ৩০পিএম

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved