সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ০১:৫৮ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
অভয়নগরে স্কুলে নিয়োগ বাণিজ্য সভাপতি ও প্রধান শিক্ষকের অপসারণের দাবিতে মানববন্ধন পুঠিয়ার বানেশ্বরে স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ও সভাপতির মারামারিতে সভাপতি আহত জয়পুরহাটে পৃথক ঘটনায় তিনজনের মৃত্যু সরিষাবাড়ীতে ব্যাপক হারে চোখ ওঠা রোগী  বেড়ে চলছে  বিদেশি মদসহ সিএনজি ড্রাইভার আটক টেকনাফে ১২টি নবনির্মিত ক্লিনিকের উদ্বোধন করেন স্বাস্থ্য মন্ত্রী  সরিষাবাড়ীতে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হত্যার উদ্দেশ্যে হামলায় মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে  কালাম সরদার তিনজনকেই ফ্ল্যাট দিয়ে সুন্দর পরিবেশে রাখা উচিত যা বললেন ডিপজল মাধবপুরে গাছ ফেলে ডাকাতির চেষ্টা গুলি ছুড়ে ডাকাত আটক।

কুষ্টিয়ায় মাছের আঁশ দিয়ে তৈরি হচ্ছে ঔষধের প্যাকেট ওমেয়েদের ব্যবহৃত প্রশাধনী

কুষ্টিয়ার পৌর বাজারে এখন মাছের আশ (চৌচা) ক্রয়-বিক্রয় হচ্ছে প্রতিদিন। প্রতিদিন ভোর ৬টা থেকে শহরের পৌরবাজারসহ বেশ কয়েকটি বাজারে শত শত মন মাছ ক্রয়-বিক্রয় হয়। এইসকল মাছ সকাল ৭টা থেকে শহরের বিভিন্ন মোড়ে, ছোট ছোট বাজরগুলোতে হাতে কেটে আশ ছাড়িয়ে খুচরা বিক্রয় করা হয়। পড়ে থাকা এইসব আশ সংগ্রহ করে বিকাল ৩টা থেকে ওইসব আশ কুষ্টিয়া পৌর-বাজারের মাছের ব্যাবসয়ীদের কাছে থেকে ১৫ টাকা কেজি দরে ক্রয় করেন দুই জন ব্যবসায়ী। মাছের আড়তদার দুই তিনজনের সাথে কথা বললে তারা বলেন, ১৫ টাকা কেজি দরে আমাদের কাছ থেকে আশ/চৌচা কিনে নিয়ে যায়। ইতিপূর্বে এই আশ ফেলে দিতাম, এখন কিছুদিন যাবত এই আশ বিক্রয় করছি। তারা বলেন কিছুটা হলেও পরিবেশ দূষনের হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যাচ্ছে। অন্যদিকে আবার বেশ কিছু অর্থও আসছে।মাছের চৌচা ক্রয়কারী হাটশ হরিপুর বোয়ালদহ গোপুর হাজী মোড়ের যুবক মোঃ পিয়ার আলীর সাথে এই বিষয়ে কথা হলে তিনি বলেন, আমি বেশ কিছুদিন যাবত এই ব্যবসা করছি। প্রতিদিন ৩০/৪০ কেজি চৌচা ক্রয় করে বাড়িতে রোদে শুকায়। এরপর একবারে ৪/৫ মন জমা হলে সেগুলো ১শত টাকা কেজি দরে ঢাকাতে বিক্রয় করি। আমরা দুই জন এই ব্যবসা করি। আরেক জনের নাম অমিত কুষ্টিয়া কোর্ট পাড়ায় বাড়ি। তিনিও আমার মতো একইভাবে চৌচা ক্রয়-বিক্রয় করে থাকেন। এব্যাপারে পিয়ার আলীকে জিজ্ঞাসা করা হয়, এই আশ যাদের কাছে বিক্রয় করেন তারা আশ দিয়ে কি তৈরি করেন। পিয়ার বলেন, তারা বলেছে আমরা মাছের চৌচা থেকে প্রায় ২০ রকমের পণ্য তৈরি করি। মেয়েদের ঠোঁটের লিপিষ্টিক, যেমন ঔষুধ ক্যাপস্যুলের কাভার ইত্যাদি তৈরী করে। আরও কি পণ্য তৈরী করে সেব্যপারে সঠিক কিছু বলে না। আসলে তারা কোন সদুত্তর দিতে পারছেনা। এই মাছের আশা বা চৌচা থেকে কি তৈরী হচ্ছে জনমনে প্রশ্ন।

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved