শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২, ০৮:২৬ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার পত্রিকাতে আপনাকে স্বাগতম! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন,বিজ্ঞাপন দিন সহযোগী হোন! বাংলাদেশ সমাচার পড়ুন বেকারত্ব দূর করুন ।
শিরোনাম :
বারইয়ারহাটে র‍্যাবের উপর মাদক কারবারিদের পরিকল্পিত হামলা ও ঘটনার বিশ্লেষণ ইতিহাস৭১.টিভির বর্ষপুর্তি উপলক্ষে আলোচনা ও কেক কাটা অনুষ্ঠান সম্পন্ন এসিল্যান্ড মাসুদ রানার অঙ্গীকার, ভুমি সেবা পাচ্ছে সাধারণ মানুষ ঋণের দিক দিয়ে এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান সবচেয়ে ভালো: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী ভাণ্ডারিয়ায় বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সন্তান কমান্ডের পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত বানিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে “ভোক্তা অধিকার বিভাগ” চায় ক্যাব চকরিয়ায় ইউপি সচিবের উপর হামলার ঘটনায় ইউপি মেম্বার কারাগারে নিকলীতে কৃষক রেনু হত্যার এক মাসেও আসামীরা ধরা ছোঁয়ার বাইরে সরিষাবাড়ীতে কচুড়িপানায় নদীর উপর রাস্তা : ভরা নদীর বুকে চালাচ্ছে সাইকেল, খেলছে ফুটবল নরসিংদীতে দুর্ঘটনার কবলে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ত্রাণবাহী পিকআপ ভ্যান

মনোহরদীতে ইউপি সদস্যদের অনিয়ম নিয়ে চেয়ারম্যানের সংবাদ সম্মেলন

নরসিংদীর মনোহরদীতে ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যদের বিভিন্ন অনিয়মের বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান। রবিবার দুপুরে উপজেলার কৃষ্ণপুর ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে ইউপি চেয়ারম্যান প্রকৌশলী এমদাদুল হক আকন্দ এই সংবাদ সম্মেলন করেন। এসময় ইউপি সচিব, সদস্য এবং ইউনিয়নের বিভিন্ন শ্রেনী পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।
ইউপি চেয়ারম্যান এমদাদুল হক আকন্দ জানান, কয়েকজন ইউপি সদস্য দীর্ঘদিন ধরে মাদক, জুয়া, সরকারী বিভিন্ন কাজে অনিয়ম- দূর্নীতি এবং অবৈধভাবে সরকারী সুযোগ সুবিধা ভোগ করে আসছেন। তাদের এসব নিয়ম বহির্ভূত এবং অনৈতিক কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় তারা আমার বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন ধরে মিথ্যাচার ও ষড়যন্ত্র করে করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি রাজনৈতিক কু-চক্রি মহলের প্ররোচনায় কয়েকজন সদস্য মিলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ভিত্তিহীন অভিযোগ দিয়েছেন।
চেয়ারম্যান আরো জানান, কৃষ্ণপুর ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য হারুন মিয়া তাঁর ছেলে-মেয়ে এবং স্ত্রীসহ স্বজনদের নাম দুস্থ ও অসহায়দের দেওয়া সরকারী ত্রাণের তালিকাভূক্ত করে ভোগ করছেন। তাছাড়া তার বাড়িতে নিয়মিত জুয়ার আসর বসান। ২ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য ওমর ফারুক অসহায় গরীব লোকদের ভাতা কার্ড করে দেওয়ার কথা বলে অর্থ আত্মসাৎ এবং নারী ঘটিত অনৈতিক কাজে জড়িত। সংরক্ষিত নারী সদস্য মনোয়ারা বেগম করোনাকলীন সরকারী নগদ অর্থ সহায়তায় এবং টিসিবির তালিকায় তাঁর ছেলে-মেয়ে এবং পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নাম তালিকাভূক্ত করে অবৈধভাবে সুবিধা ভোগ করে আসছেন। ৩ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য আহম্মদ আলী প্রদীপ বিভিন্ন লোকদের কাছ থেকে বিধবা, প্রতিবন্ধী এবং বয়স্ক ভাতা কার্ড করে দেওয়ার কথা বলে অর্থ আত্মসাৎ করেছেন।
অভিযোগের বিষয়ে ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য হারুন মিয়া ১০ টাকা কেজি চালের তালিকায় তার ছেলের নাম থাকার কথা স্বীকার করলেও অন্যান্য অভিযোগ অস্বীকার করেন।
এ ছাড়া ইউপি সদস্য আহম্মদ আলী প্রদীব ও ওমর ফারুক বলেন, চেয়ারম্যানের অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোয়াট।

Please Share This Post in Your Social Media

বিজ্ঞপ্তি

©দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার 2022All rights reserved